কোমর বা ঘাড় ব্যথায় আগে অপারেশন না ফিজিওথেরাপি ?

বর্তমানে অর্থোপেডিক, নিউরো এবং ফিজিওথেরাপি চিকিৎসক দের বেশীরভাগ রোগীই কোমর বা ঘাড় ব্যথার রোগী । প্রতিনিয়ত গড় আয়ু বৃদ্ধি, কর্পোরেট পেশা, নগরায়ণ, শরীর চর্চার অভাব, অত্যধিক পরিশ্রম, শ্রমিক-পেশাজীবী, দীর্ঘক্ষন কম্পিউটার বা মোবাইল শারীরিক দুর্ঘটনা, দীর্ঘক্ষন একই পজিশনে বসে থাকা, কাজ করার সময় সঠিক দেহবস্থান মেনে না করা ইত্যাদি কারণে কোমর বা ঘাড়  ব্যথার রোগী প্রতিনিয়ত বৃদ্ধি পাচ্ছে।

আমাদের দেশের কোমর বা ঘাড় ব্যথার ৯০ শতাংশ রোগী আমাদের চিকিৎসক দের কাছে আসেন, বিভিন্ন ম্যাকানিকাল সমস্যা নিয়ে যেমনঃ মেরুদণ্ডের মাংসপেশিতে আঘাত, লিগামেন্ট ইনজুরি বা  আংশিক ছিঁড়ে যাওয়া, দুই কশেরুকার মধ্যবর্তী ডিস্ক সমস্যা, কশেরুকার অবস্থানের পরিবর্তন ও মেরুদণ্ডের নির্দিষ্ট গঠন এর  পরিবর্তনকে বোঝায়। অন্যান্য কারণের মধ্যে রয়েছে বয়সজনিত মেরুদণ্ডের ক্ষয় বা বৃদ্ধি, অস্টিওআর্থাইটিস, গেঁটে বাত, অস্টিওপোরোসিস, এনকাইলজিং স্পনডাইলোসিস, মেরুদণ্ডের স্নায়ুবিক সমস্যা, টিউমার, ক্যান্সার, বোন টিবি, কোমরের মাংসপেশির সমস্যা, পেটের বিভিন্ন অঙ্গের রোগ বা ইনফেকশন, বিভিন্ন স্ত্রীরোগজনিত সমস্যা, মেরুদণ্ডের রক্তবাহী নালির সমস্যা, অপুষ্টিজনিত সমস্যা, মেদ বা ভুঁড়ি, অতিরিক্ত ওজন ইত্যাদি কারনেও কোমর ব্যথা হয়ে থাকে।

আমাদের দেশের অধিকাংশ রোগীই স্পেশালি যারা ঘাড় বা কোমর ব্যথায় ভুগছেন এরা বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই সঠিক চিকিৎসা হতে বঞ্চিত হচ্ছেন, অথবা সঠিক চিকিৎসা সেবা পেলেও সেটা অনেক দেরিতে পাচ্ছেন। তার মধ্যে রোগী অনেক টাকা এবং শারীরিক ভাবে অনেক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন। যেহেতু কোমর বা ঘাড় ব্যথার ৯০% কারন ম্যাকানিক্যাল সমস্যা তাই এধরনের রোগীর চিকিৎসা হওয়া উচিৎ তার ম্যাকানিক্যাল সমস্যার সমাধান। আমি এরকম অনেক রোগী পেয়েছি যাদের কে সার্জন বলে দিয়েছেন ১ সপ্তাহ এর মধ্যে অপারেশন না করলে  প্যারালাইসিস হয়ে যাবে, কিন্তু সে রোগীও ফিজিওথেরাপি নিয়ে সম্পূর্ন সুস্থ্য হয়ে গিয়েছে।

কোমর বা ঘাড় ব্যথার ৯০ শতাংশ রোগী ফিজিওথেরাপি নিয়ে সুস্থ্য হয়ে যান, মাত্র ১০% রোগীর অপারেশন বা সার্জারী প্রয়োজন হয়। এছাড়াও কোমর বা ঘাড় ব্যথার রোগিদের এই অপারেশন এর সাকসেস রেট নিয়েও আছে অনেক বিতর্ক। আমরা প্রতিনিয়ত অসংখ্য রোগী পাই যারা অপারেশন করে আমাদের কাছে আসেন, কিন্তু তখন আমাদের ট্রিটমেন্ট প্লানে অনেক মডিফিকেশন করতে হয়।

#মিঃ জাবের দীর্ঘ দিন কোমর ব্যথায় ভুগছেন, MRI করে দেখা গেলো পি এল আই ডি (PLID L4-L5) রিজিয়নে, সার্জন তাকে সার্জারি করালেন, কিছুদিন পরেই তার আবার ব্যথা শুরু হলো। সেক্ষেত্রে তার L4-L5 রিজিয়ন থেকেও ব্যথা হতে পারে। অথবা দেখা গেলো তার L2-L3 অথবা L3-L4 রিজিয়ন থেকে ব্যথা হচ্ছে। রোগী পুনরায় সার্জন এর কাছে গেলেন সার্জন বললো আমি আমার অপারেশন ঠিক করেছি অন্য জায়গায় সমস্যা অথবা আপনি নিয়ম মেনে চলেন নাই তাই আপনার এই সমস্যা হয়েছে । এখন আপনি ফিজিওথেরাপি নিন। রোগী আসলো আমাদের কাছে কিন্তু যেহতু তার L4-L5 এ অপারেশন করা তাই আমাদের তখন শুধু তার ব্যথা কমিয়ে রাখার জন্য চিকিৎসা করতে হয়। তাকে সম্পূর্ন সুস্থ্য করার জন্য যেই ম্যাকানিক্যাল কারেকশন প্রয়োজন অনেক ক্ষেত্রেই তা করা আর সম্ভব হয় না।

#মি.রফিকুল ইসলাম একজন বিচারপতি, দীর্ঘদিন ঘাড় ব্যথায় ভুগছেন বিভিন্ন স্পেশালিষ্ট চিকিৎসক দেখাচ্ছিলেন কোনভাবেই তার ব্যথা কমছিলো না। তার রোড ট্রাফিক একসিডেন্ট এর হিস্ট্রি ছিলো  C3-C4 & C4-C5 রিজিয়নের ডিক্স প্রোলাপ্স ছিলো,  তাকে আমাদের ম্যাক্সিমাম সার্জন সাজেস্ট করলেন অপারেশন করাতে কিন্তু উনি কোনভাবেই রাজি হচ্ছিলেন না। মন্ত্রণালয় থেকেও বিভিন্ন ভাবে প্রেসারাইজড করা হচ্ছে যেহেতু উনি হাতের ব্যথার জন্য বিচারকার্য ঠিক মতো করতে পারছিলেন না। সে তার চিকিৎসক কে প্রশ্ন করলেন আমার এই সমস্যার অপারেশন ছাড়া বিকল্প চিকিৎসা কি? সার্জন তাকে বললেন আপনি ফিজিওথেরাপি চিকিৎসা নিয়ে দেখতে পারেন। পরবর্তীতে সে আমাদের এখানে চিকিৎসা নেন, যেহেতু ওনার সমস্যা বেশী ছিলো এবং ট্রমাটিক হিস্ট্রি ছিলো তাই প্রায় ২ মাস চিকিৎসা নেওয়ার পর উনি সম্পূর্ন সুস্থ্য হয়ে যান।

আবারো বলছি শুধুমাত্র ১০% শতাংশ রোগির ক্ষেত্রেই  অপারেশন প্রয়োজন।সকল রোগী এবং চিকিৎসা প্রফেশনালদের ও বলবো অপারেশন করার পুর্বে অবশ্যই কনজারভেটিব চিকিৎসার অংশ হিসেবে ফিজিওথেরাপি চিকিৎসা নেওয়ার জন্য, ইনশাআল্লাহ্‌ ম্যাক্সিমাম রোগীই সম্পূর্ন সুস্থ্য হয়ে যাবে।

ডাঃ মোঃ নেছার উদ্দিন-ফিজিওথেরাপিস্ট                                                                                                                                          কেসি হাসপাতাল এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার,উত্তরা।                                                                                                                  ফিজিওজোন ফিজিওথেরাপি সেন্টার,উত্তরা।                                                                                                                               মোবাইলঃ ০১৯৪৭৫৫৯৩০৪/ ০১৭৭১৫৬৪৮৭৫                                                                                                                           ওয়েবঃ www.physiozonebd.com

Leave a Comment :
Share This :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *